নির্বাচিত বই ।। খড়ের মানুষ ।। খোকন দাস

খড়ের মানুষ

লেখক: খোকন দাস
প্রচ্ছদ: নির্ঝর নৈঃশব্দ 
ধরণ: গল্প
প্রকাশক: দেবদারু
স্টল নং: ৪৪৩-৪৫
পরিবেশক: বাতিঘর
মূদ্রিত মূল্য: ০০

বই সম্পর্কে
খোকন দাস বাংলা গল্পের ভুবনে প্রবেশ করেছেন পরিণত বয়সে, তবে তিনি আগুন্তুক নন। ২০১৮ সালে তাঁর প্রথম গল্পগ্রন্থ ‘কাক ও অন্যান্য গল্প’বেরয়। এটা অত্যন্ত আশার কথা যে, তিনি এসে হঠাৎ চলে যাননি। আটটি গল্প নিয়ে তাঁর এই দ্বিতীয় গল্পগ্রন্থ ‘খড়ের মানুষ’।
আমরা বলেছি, বাংলা গল্পের ভুবনে তাঁর প্রবেশ আকস্মিক, কিন্তু তিনি অনাহুত নন। একটা প্রস্তুতি তাঁর বরাবরই ছিল। বলতে পারি, একজন সাহিত্যকর্মীর পরিণত আত্মপ্রকাশ এ গল্পগুলো।

খোকন দাসের গল্পে সমাজটা স্পষ্ট চোখে পড়ে। তবে সমাজের ওপরের তল নয়, বরং তলানির মানুষগুলো তাদের সুখ-দুঃখ-বেদনা নিয়ে হাজির হয়। ‘সুড়ঙ্গ’ গল্পে নীলুফারকে রুখে দাঁড়াতে দেখি, তাতে সাময়িক প্রতিরোধ হয় বটে চূড়ান্ত রক্ষা হয় না। সমাজে নীলুফার-রফিকুলরা আসলে মারই খাচ্ছে।

দেশত্যাগ যে মোহনীয় কিছু নয়, এর কানাগলিতে একবার ঢুকে পড়লে সর্বস্বান্ত হওয়ার জোগাড় হয় তার বর্ণনা পাই ‘হিরালালের দেশত্যাগ’গল্পে। এ গল্প দেশত্যাগের একটা নতুন বয়ান হাজির করে। সর্বস্ব খুইয়ে পথে বসার আয়োজন সম্পন্ন হলেও দেশত্যাগ আর হয় না। হয়ত এ কারণে ‘ননী কবিরাজ’ গল্পে তার বৃদ্ধ মাকে বলতে শুনি—‘আমি প্রায় অন্ধ মানুষ, গাছপালার ঘ্রাণ শুঁকে শুঁকে চলি অন্য কোথাও গেলে বাঁচতে পারব না।’

খোকন দাস গল্প বলেন যে ভাষায় আমরা অভ্যস্ত সে ভাষায়। সে কারণে পাঠককে হোঁচট খেতে হয় না। তবে যে জীবন এখন গল্পের বিষয় হয় কম সে জীবনেরই গল্পকার খোকন দাস। এখানেই তাঁর সার্থকতা।

ড. মো. মেহেদী হাসান/ অধ্যাপক, বাংলা বিভাগ 
অতিরিক্ত পরিচালক/ উচ্চমাধ্যমিক শিক্ষক প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউট, কুমিল্লা।

লেখক পরিচিতি


খোকন দাস
খোকন দাসের জন্ম ফেনী জেলার দাগনভূঞা উপজেলার চাঁদপুর গ্রামে; ১৯৭০ সালের ৩১ ডিসেম্বরে। মা ভুলু রানি দাস, পিতা নিবারণ চন্দ্র দাস। গ্রামের সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পর ভর্তি হন আতাতুর্ক আদর্শ উচ্চ বিদ্যালয়ে। স্কুলে পড়া অবস্থায় সম্পৃক্ত হন জহুর হোসেন চৌধুরী স্মৃতি পাঠাগারের সঙ্গে। সাহিত্য, ইতিহাস, রাজনীতি, বিজ্ঞান—প্রায় সব বিষয়ে পাঠের দারুণ সুযোগ এসে যায় এই পাঠাগারের কল্যাণে। মাধ্যমিকের পাঠ চুকিয়ে ভর্তি হন চৌমুহনী সরকারি এস এ কলেজে। সমাজের নানা সঙ্গতি-অসঙ্গতির কার্যকারণ খুঁজতে খুঁজতে অজান্তেই জড়িয়ে পড়েন বামপন্থী ছাত্র-রাজনীতির সঙ্গে। উচ্চতর শিক্ষার জন্য চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি হন অর্থনীতি বিভাগে। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যয়নকালে তিনি আরো নিবিড়ভাবে নিজেকে সম্পৃক্ত করেন বামপন্থী রাজনীতিতে, ছাত্রত্ব শেষ করে সমাজবদলের স্বপ্ন নিয়ে বেশ কয়েক বছর যুক্ত থাকেন সার্বক্ষণিক রাজনীতিতে। এর পর পেশা হিসেবে বেছে নেন সাংবাদিকতা। বর্তমানে ব্যবসায় আর লেখালেখি নিয়েই তাঁর সময় কাটে। প্রথম প্রকাশিত বই: কাক ও অন্যান্য গল্প (২০১৮)।  

 

 

 

Facebook Comments

comments

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

scroll to top